আপনিও পারবেন প্রতিমাসে ১৯,০০০ টাকা আয় করতে! জেনে নিন SBI SWP প্ল্যান সম্পর্কে

Whatsapp-Group-Link
krishak bandhu Join Whatsapp channel

আজ আমরা এমন একটি বিনিয়োগ কৌশল সম্পর্কে জানব, যেখানে একবার বিনিয়োগ করে আপনি প্রতিমাসে একটি নির্দিষ্ট পরিমাণ আয় করতে পারবেন এবং আপনার বিনিয়োগ করা অর্থের মূল্যও বৃদ্ধি পাবে।

আপনি চাইলে যে কোনো মিউচুয়াল ফান্ডে বিনিয়োগ করতে পারেন। আজকের আলোচনায় আমরা স্টেট ব্যাংকের মিউচুয়াল ফান্ড স্কিমে বিনিয়োগ করে কীভাবে প্রতিমাসে ১৯,০০০ টাকা আয় করা যায়, তা জানবো।

আরো পড়ুন: মাধ্যমিক পাশ করা ছাত্র-ছাত্রীরা পাবেন ১০,০০০ টাকা, বিদ্যাধন স্কলারশীপ ২০২৪

SBI মিউচুয়াল ফান্ডের SWP প্ল্যান কী?

সিস্টেমেটিক ইনভেস্টমেন্ট প্ল্যানের (SIP) ঠিক উল্টো হলো সিস্টেমেটিক উইথড্রোল প্ল্যান (SWP)। মিউচুয়াল ফান্ডে বিনিয়োগের পর SWP করলে, ওই মিউচুয়াল ফান্ড থেকে একটি নির্দিষ্ট অর্থ প্রতিমাসে আপনার ব্যাংক অ্যাকাউন্টে স্বয়ংক্রিয়ভাবে স্থানান্তরিত হবে। এর ফলে আপনি প্রতিমাসে নির্দিষ্ট পরিমাণ আয় পাবেন এবং মিউচুয়াল ফান্ডের বিনিয়োগ করা অর্থও ধীরে ধীরে বাড়তে থাকবে।

আরো পড়ুন: যারা চাকরি খুঁজছেন তাদের জন্য বড়ো সুখবর: বেতন সর্বাধিক ৪১,০০০ টাকা

কেন SBI Bluechip Fund বেছে নিবেন?

SBI এর বেশ অনেকগুলি মিউচুয়াল ফান্ড স্কিম রয়েছে aar এই স্কিমগুলিতে  আপনি SWP করে প্রতিমাসে নির্দিষ্ট পরিমানে আয় পেতে পারেন। তবে, আজ আমরা SBI Bluechip Fund-এ মাত্র ৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করে কীভাবে প্রতিমাসে ১৯,০০০ টাকা আয় করবেন এবং প্ল্যান শেষে ৬০ লক্ষ টাকা রিটার্ন পাবেন, তা নিয়ে জানবো।

SBI Bluechip Fund-Growth

SBI মিউচুয়াল ফান্ড হাউস ১৪ ফেব্রুয়ারি, ২০০৬ সালে এই ফান্ডটি প্রথম লঞ্চ করেছিল। এটি একটি লার্জ ক্যাপ ইকুইটি ফান্ড। এর বর্তমান নেট অ্যাসেট ভ্যালু ৮৭.৭১ টাকা। SBI Bluechip Fund গত ১ বছরে ২৫.৬৬ শতাংশ রিটার্ন দিয়েছে। গত ৩ বছরে ১৬.৮৩ শতাংশ এবং গত ৫ বছরে ১৬.৬৯ শতাংশ রিটার্ন দিয়েছে।

ফান্ডটি চালু হবার পর থেকে আজ পর্যন্ত বিনিয়োগকারীদের বার্ষিক গড় ১২.৫৪ শতাংশের রিটার্ন দিয়েছে। ৩১ মে, ২০২৪ অনুযায়ী এর ফান্ড সাইজ ৪৬০৮৪.৪২ কোটি টাকা।

আপনি এতে সর্বনিম্ন ৫,০০০ টাকা বিনিয়োগ করতে পারবেন এবং সর্বনিম্ন ১,০০০ টাকা অতিরিক্ত বিনিয়োগ করতে পারবেন। আপনি যদি মাসে মাসে বিনিয়োগ করতে চান, তাহলে সর্বনিম্ন ৫০০ টাকা থেকে SIP করতে পারবেন। SBI Bluechip Fund-এর এক্সিট লোড ১ শতাংশ, যদি ১ বছরের আগে তোলা হয়।

আরো পড়ুন: মাধ্যমিক পাশ করলেই বনদপ্তরে চাকরি, পশ্চিমবঙ্গের তরুণদের জন্য সুবর্ণ সুযোগ!

প্রতিমাসে ১৯,০০০ টাকা আয়ের পদ্ধতি

১. বিনিয়োগ করুন ৫ লক্ষ টাকা: আপনি যদি SBI Bluechip Fund-এ ৫ লক্ষ টাকা বিনিয়োগ করেন এবং ফান্ডটি যদি অতীতের মত ভবিষ্যতে সর্বনিম্ন ১২ শতাংশ রিটার্ন দেয়, তাহলে ১৫ বছর পর আপনার আমানতের পরিমাণ হবে ২৭,৩৬,৭৮৩ টাকা।

২. SWP চালু করুন: এরপর আপনি যদি এতে আরো ১৫ বছরের জন্য মাসে ১৯,০০০ টাকার SWP চালু করেন। তাহলে প্রতিমাসে ১৯,০০০ টাকা পাবেন এবং ১৫ বছর পর ১২ শতাংশ রিটার্ন অনুযায়ী আরো ৬০,২২,২৬৩ টাকা রিটার্ন পাবেন।

(Disclaimer)

আমরা সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ বোর্ড অফ ইন্ডিয়া (SEBI) নিবন্ধিত আর্থিক উপদেষ্টা নই। এই নিবন্ধটি শুধুমাত্র তথ্য সরবরাহ এবং শিক্ষামূলক উদ্দেশ্যে প্রণীত হয়েছে। এটি কোনো অবস্থাতেই বিনিয়োগের পরামর্শ হিসেবে গণ্য করা উচিত নয়।

বিনিয়োগ করার পূর্বে আপনাকে অবশ্যই আপনার নিজস্ব গবেষণা করতে হবে এবং আপনার ঝুঁকি গ্রহণের ক্ষমতা বিবেচনা করতে হবে। আপনার বিনিয়োগের ফলাফলের জন্য আমরা কোনোভাবেই দায়বদ্ধ থাকবো না।

আরো পড়ুন: তরুণের স্বপ্ন প্রকল্প, সুবর্ণ সুযোগ: সরকার ১০ হাজার টাকা দিচ্ছে স্মার্টফোন কেনার জন্য

উপসংহার

SBI Bluechip Fund-এর মাধ্যমে সঠিক পরিকল্পনা করে আপনি প্রতিমাসে একটি নির্দিষ্ট আয় নিশ্চিত করতে পারেন। তবে, বিনিয়োগের আগে আপনার নিজের ঝুঁকি সহনশীলতা এবং বাজারের বর্তমান পরিস্থিতি বিবেচনা করা অত্যন্ত জরুরি।

Leave a Comment