নবান্ন স্কলারশিপে ১০,০০০ টাকা পাওয়ার সুযোগ! আবেদন করার সহজ পদ্ধতি দেখে নাও!

Whatsapp-Group-Link

নবান্ন স্কলারশিপ: 2024 এ মাধ্যমিক পাশ করেছে বাড়ির ছেলে বা মেয়েটি! কিন্তু তারপর পড়াশোনা কীভাবে এগিয়ে নিয়ে যাবেন তা নিয়ে অনেক বেশি ভাবছেন? র চিন্তা করবেন না কারণ আপনার পাশে এসে দাঁড়িয়েছে রাজ্য সরকার।

ছাত্র-ছাত্রীদের থেকে শুরু করে ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী, কৃষক সকলের জন্য বিভিন্ন ধরণের প্রকল্প নিয়ে এসেছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। সেইরকম পশ্চিমবঙ্গ সরকারের আরেকটি জনপ্রিয় প্রকল্প ‘নবান্ন স্কলারশিপ’। কারা এই স্কলারশিপের জন্য আবেদন জানাতে পারবেন? কত টাকা পাবেন স্কলারশিপে? কী কী ডকুমেন্ট লাগবে তা জানতে পড়ুন বিস্তারিত।

নবান্ন স্কলারশিপ কী?

পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের মেধাবী গরীব ছাত্রছাত্রীদের উচ্চশিক্ষার জন্য এই স্কলারশিপ শুরু করেছে। যারা অর্থনৈতিক সমস্যার সম্মুখীন হয়ে উচ্চশিক্ষা গ্রহণ করতে পারেন না তাদের আর্থিক সহায়তা দেওয়ার জন্য এই প্রকল্প।

কারা এই নবান্ন স্কলারশিপ র সুবিধা পাবেন?

যেসব ছাত্র-ছাত্রীরা পশ্চিমবঙ্গের যে কোনো স্বীকৃত স্কুল থেকে মাধ্যমিক বা উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় কমপক্ষে ৫০ শতাংশ বা তার বেশি নম্বর পেয়েছে। পাশাপাশি যেকোনো Diploma/Btech/Mbbs/Law/Nursing/ফার্মেসি কোর্সগুলিতে পাঠরত শিক্ষার্থীরা এখানে আবেদন করতে পারবেন।

শিক্ষাগত যোগ্যতা

এই প্রকল্পের আবেদন করার জন্য আবেদনকারীদের অবশ্যই পশ্চিমবঙ্গের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
আর্থিক সহায়তা পাওয়ার জন্য শিক্ষার্থীকে অবশ্যই মাধ্যমিক পরীক্ষায় মোট ৫০ শতাংশ বা তার বেশি এবং ৬০ শতাংশের কম নম্বর পেতে হবে।
স্নাতক বা স্নাতকস্তরে পড়ুয়ারত হলে সাধারণ বিষয়গুলিতে ৫০ শতাংশ বা তার বেশি এবং ৫৩ শতাংশ নম্বর পেতে হবে।
পশ্চিমবঙ্গের উচ্চশিক্ষা পরিষদ ও শিক্ষা সংসদের অনুমোদিত যেকোনো কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয় বা প্রতিষ্ঠানের মধ্যে পড়াশোনা করতে হবে।
আবেদনকারীর পারিবারিক আয় হতে হবে ১ লক্ষ ২০ হাজার টাকার মধ্যে।

নবান্ন স্কলারশিপের জন্য কী কী ডকুমেন্ট লাগবে?

পরীক্ষার মার্কশিট (মাধ্যমিক বা উচ্চমাধ্যমিক)
আধার কার্ড
পাসপোর্ট সাইজের ফটো
ব্যাংক পাসবুক (ছাত্রছাত্রীর নিজস্ব)
পারিবারিক বার্ষিক ইনকাম সার্টিফিকেট
MLA/MP রেকমেন্ডেশন ও স্বঘোষণা
একটি বৈধ মোবাইল নম্বর ও ইমেইল আইডি

নবান্ন স্কলারশিপে কীভাবে আবেদন করবেন?

আগে নবান্ন স্কলারশিপের আবেদন অফলাইনে পূরণ করা হতো কিন্তু এখন থেকে আবেদনকারীরা ওয়েবসাইটে গিয়ে অনলাইনে আবেদন জমা দিতে পারবেন।
২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষ থেকে নতুন পোর্টাল চালু হয়েছে এবং সমস্ত আবেদন ভেরিফিকেশনের কাজ Chief Minister’s Relief Fund Scholarship Online পোর্টালের মাধ্যমে হবে।
আবেদন করার জন্য আপনাকে আগে পোর্টালে যেতে হবে। তারপর সেখানে অনলাইন ফর্ম পূরণ করে তথ্য জমা করতে হবে। বর্তমানে ২০২৪-২৫ শিক্ষাবর্ষের জন্য আবেদন শুরু হয়নি। আশা করা হচ্ছে লোকসভা নির্বাচনের ফলাফলের পর স্কলারশিপের আবেদন শুরু হবে।

অফিসিয়াল ওয়েবসাইট: https://cmrf.wb.gov.in

Leave a Comment